ছিল ধোঁয়াশা, অবশেষে মঙ্গলবার রাতে সে সংশয় কেটেছে

স্পোর্টস ডেস্ক : আগেই জানা, সাকিব আল হাসান দ্বিতীয় টেস্টের দলের নেই। তার জায়গায় কাউকে নেয়া হবে নাকি বাকি ১৭ জনের মধ্য থেকেই একাদশ সাজানো হবে, তা নিয়েও ছিল ধোঁয়াশা।

অবশেষে মঙ্গলবার রাতে সে সংশয় কেটেছে। বাম ঊরুতে ইনজুরির কারণে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে দ্বিতীয় টেস্টে খেলতে পারবেন না বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার। তার বিকল্প হিসেবে শেষ মুহূর্তে দলে নেয়া হয়েছে বাঁহাতি ব্যাটসম্যান সৌম্য সরকারকে।

সাকিব বাঁহাতি উইলোবাজ, সঙ্গে দলের প্রধান স্পিনার। আর সৌম্য মূলত বাঁহাতি ব্যাটসম্যান। ওয়ানডে, টি-টোয়েন্টিতে ওপরের দিকে খেললেও টেস্টে নামেন নিচের দিকে, ছয়-সাত নম্বরে। আর একটু-আধটু পেস বোলিংও করেন। সেটা অবশ্য সীমিত ওভারের খেলায়। টেস্টে সৌম্য স্পেশালিস্ট বোলারের কাতারে পড়েন না কখনওই।

তাহলে সাকিব আল হাসানের বদলে জৈব সুরক্ষা বলয় ভেদ করে বাইরে থেকে সৌম্যকে নেয়া হলো কেন? তবে কি সৌম্যই হবেন সাকিবের বিকল্প? সাকিবের জায়গায় বিশেষজ্ঞ স্পিনার নাসুম আহমেদ কিংবা অন্য কাউকে খেলানোর অর্থ একজন ব্যাটসম্যান কমে যাওয়া।

তাই হয়তো ব্যাটিং শক্তি অক্ষুণ্ণ রাখতে সৌম্যকে নেয়া। তার বাঁহাতি জেন্টাল মিডিয়াম পেস বোলিংকেও হিসেবে রাখতে চায় নির্বাচক ও টিম ম্যানেজমেন্ট- এমন চিন্তাই ছিল সবার। তবে ভেতরের খবর ভিন্ন। সাকিবের একার বিকল্প হিসেবে শুধু নয়, সৌম্য দলে নেয়ার আরও একটা কারণ আছে। প্রথম টেস্টের প্রথম ইনিংসে দারুণ ব্যাটিং করে হাফসেঞ্চুরি হাঁকানো বাঁহাতি ওপেনার সাদমান ইসলামেরও কুঁচকিতে সমস্যা রয়েছে। তার ঢাকা টেস্ট খেলা নিয়ে আছে সংশয়।

আজ (বুধবার) তার ফিটনেস টেস্ট হবে। সেখানে উত্তীর্ণ হতে পারলেই কেবল বৃহস্পতিবার থেকে শুরু হতে যাওয়া দ্বিতীয় ও শেষ টেস্ট খেলা সম্ভব হবে সাদমানের। না হয় তার বদলে আর কাউকে দলে নিতে হবে। সেক্ষেত্রে হয়তো দ্বিতীয় টেস্টের একাদশে আসতে পারে দুটি পরিবর্তন। সাদমানের বদলে সাইফ হাসান আর সাকিবের বিকল্প হিসেবে আসবেন সৌম্য সরকার।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *