থুতু ফেলা নিয়ে দেশীয় অস্ত্র নিয়ে সংঘর্ষ, নিহত ১

ব্রাহ্মণবাড়িয়া: ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সরাইলে ঘরের সামনে থুতু ফেলা নিয়ে বাকবিতণ্ডার জেরে চাচাতো ভাইয়ের হাতে রুহেল (৩০) নামের এক যুবক নিহত হয়েছে। মঙ্গলবার (৯ ফেব্রুয়ারি) সন্ধ্যায় উপজেলার মোগলটুলা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। নিহত রুহেল ওই এলাকার লিয়াকত আলীর ছেলে।

সরাইল থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) জাকির হোসেন খন্দকার জানান, ‘মোগলটুলা গ্রামের রুহেল ফেরিওয়ালার ব্যবসা করতেন। তার সাথে একই বাড়িতে বসবাস করা আপন চাচা গেন্দু মিয়ার ছেলে কাউসারের নানান বিষয় নিয়ে বিরোধ চলে আসছিল। মঙ্গলবার সকালে রুহেলের ঘরের সামনে দিয়ে যাওয়ার সময় কাউসার থুতু ফেলে। এ নিয়ে রুহেল ও তার মায়ের সাথে কাউসারের বাকবিতণ্ডা হয়।’

তিনি আরও বলেন, ‘সন্ধ্যায় কাজ থেকে ফিরে দুইজন সকালের বিষয় নিয়ে পুনরায় বাকবিতণ্ডায় জড়িয়ে পড়ে। এর ধারাবাহিকতায় রুহেল ও কাউসারের পরিবার দেশীয় অস্ত্র নিয়ে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। এ সময় রুহেলকে ছুরিকাঘাত করা হয়।

গুরুতর আহত অবস্থায় হাসপাতালে নেওয়ার পথে সে মারা যায়। কাউসারের বাবা গেন্দু মিয়া ও মা আমেনা বেগমকে আটক করা হয়েছে বলে জানান এসআই।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *