হাত-পা কেন অবশ হয়, হলে কী করবেন?

একটানা বসে থাকলে বা নানা সময়ে দেখা যায় হাত বা পা অবশ হয়ে যায়। দীর্ঘ সময় হাত কিংবা পায়ের ওপর ভর করে থাকলেও এমন হয়ে থাকে। মানব শরীরে কেন এমন হয় তার নির্দিষ্ট ব্যাখ্যা রয়েছে। এমন হলে সতর্ক হওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন বিশেষজ্ঞরা।

মাল্টিপল স্ক্লেরোসিসের কারণে এমনটা হতে পারে। এই সমস্যায় স্নায়ুতন্ত্রের মায়োলিন সিথ ক্ষতিগ্রস্ত হতে পারে। এমন ঘটনা যদি কারো ক্ষেত্রে বারবার ঘটতে থাকে তাহলে সতর্ক হতে হবে।

চিকিৎসা বিজ্ঞান বলছে, যেসব মানুষের ডায়াবেটিস রোগ রয়েছে তাদের অনেক ক্ষেত্রে পেরিফেরাল স্নায়ু রোগের প্রকোপ দেখা যায়। পেরিফেরাল স্নায়ুর সমস্যায় পায়ের পাতা ঘন ঘন অবশ হয়ে যেতে পারে। সমস্যাটি ধীরে ধীরে ব্যক্তির শরীরের উপরের অংশেও দেখা দিতে পারে।

স্নায়ুরোগ বিশেষজ্ঞদের মতে, নিউরালজিয়ার কারণে এমনটা হতে পারে। স্নায়ু ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ার ফলে হাত, পা ও শরীরের অন্যান্য অংশে তীব্র ব্যথা এবং জ্বালা হতে পারে। শরীরের যে কোনো অংশেই এই সমস্যা হতে পারে।

স্ট্রোকের প্রথম লক্ষণ হলো বাঁ হাত অবশ হয়ে যাওয়া যা ক্রমশ হাতের তালু পর্যন্ত ছড়িয়ে পরে। মস্তিষ্কে যদি রক্ত সরবরাহ পর্যাপ্ত না হয় সে ক্ষেত্রে স্ট্রোক হয়। বিশেষ করে রক্তনালী কোনো কারণে বাধাপ্রাপ্ত হলে এমন হয়।

এ জাতীয় সমস্যা দেখা দিলে অলসতা না করে ডাক্তারের পরামর্শ দেয়া জরুরী।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *